Main Menu

গোবিন্দগঞ্জে মহাসড়ক দূঘর্টনারোধে হাইওয়ে পুলিশের নানামূখী পদক্ষেপ ৫ মাসে ১৩৯৩ টি পরিবহণ আটক

গাইবান্ধা প্রতিনিধি ঃ মহাসড়কে দূঘটনারোধে নানামূখী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ হাইওয়ে থানা পুলিশ। গত ৫ মাসে মহাসড়কে চলাচল নিষিদ্ধ ১৩৯৩ টি পরিবহণ আটক করে আটকাদেশ দেওয়া হয়েছে। এসব পরিবহণের মধ্যে সিএনজি, ইজিবাইক, অটোভ্যান, ভটভটি, লেগুনা রয়েছে। ফলে গত ৫ মাসে ৬ টি দূঘর্টনা ঘটেছে। বিশেষ করে মহাসড়ক ঘেষে বড় বড় হাট-বাজার গুলোতে হাইওয়ে পুলিশের কঠোর নজরদারির কারণে দূঘর্টনা কমে এসেছে বলে সচেতন নাগরিকদের অভিমত।

জানা গেছে, গোবিন্দগঞ্জ থানার আয়তন বগুড়া রংপুর মহাসড়ক ৭৬ কিঃ, মোকামতলা জয়পুরহাট আঞ্চলিক মহাসড়ক ২০ কিঃ, গোবিন্দগঞ্জ দিনাজপুর আঞ্চলিক মহাসড়ক ১৭ কিঃ মোট ১১৫ কিঃ মহাসড়ক ও আঞ্চলিক মহাসড়ক দেখভাল করছে গোবিন্দগঞ্জ হাইওয়ে থানা পুলিশ। হাইওয়ে থানায় রয়েছে ৪৮ জন পুলিশ সদস্যের জন্য ২ টি পিকআপ ভ্যান ও ৪টি মোটরসাইকেল। প্রতিনিয়ত দিনরাত জনগণের জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হাইওয়ে পুলিশ কাজ করছে।

দূঘর্টনারোধ কল্পে হাইওয়ে থানা পুলিশের উল্লেখযোগ্য পদক্ষেপ গ্রহণঃ মহাসড়কের উপর হাট-বাজার নিয়ন্ত্রণ, অদক্ষ চালক দ্বারা বিভিন্ন পরিবহণ তদারকি, সরকারের ঘোষনা অনুযায়ী মহাসড়কে চলাচলরত নিষিদ্ধ পরিবহণ আটক।

গোবিন্দগঞ্জ হাইওয়ে থানা পুলিশের এসব সাহসি ভূমিকায় অনেকে খুঁশি হলেও, নাখোছ রয়েছে অনেকে।
তবে সব মূলে সর্বসাধারণের দাবী এ ভাবেই যদি মহাসড়কে হাইওয়ে থানা পুলিশের উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পালন করলে অকারণে আর কোন মায়ের সন্তানের প্রাণ মহাসড়কে ঝড়বে না।

এ বিষয়ে গোবিন্দগঞ্জ নাগরিক কমিটির আহবায়ক এম এ মতিন মোল্লা বলেন, মহাসড়কে পরিবহণ নিয়ন্ত্রণে রাজনৈতিক হস্তক্ষেপ বন্ধ করা হলে দূঘর্টনা আরো কমবে। এ ছাড়াও তিনি সরকারের সংশ্লিষ্ট বিভাগের আশুহস্তক্ষেপ কামনা করে বলেন, বিশাল আয়তন নিয়ে গোবিন্দগঞ্জ হাইওয়ে থানা। এর তুলনায় পুলিশের জনবল অনেক কম। তাই পুলিশের জনবল বৃদ্ধির পাশাপাশি মহাসড়কে শৃঙ্খলা ফেরাতে হলে পুলিশকে পুলিশের মত কাজ করার সুযোগ দিতে হবে।

গোবিন্দগঞ্জ হাইওয়ে থানা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ আব্দুল কাদের জিলানী বলেন, মহাসড়কে জনগণের জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত, পরিবহণে চাঁদাবাজি বন্ধ, করোনা ভাইরাস কোভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণে হাইওয়ে পুলিশ জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পুলিশের আইজি মহাদয়ের নির্দেশক্রমে ও হাইওয়ে বগুড়া রিজিয়নের পুলিশ সুপার শফি উল্ল্যাহর দিক নির্দেশনায় ৫ মাসে মহাসড়কে নিষিদ্ধ ১৩৯৩ টি বিভিন্ন পরিবহণ আটক করা হয়েছে। এ কারণে বিগত ৫ মাসে ৬ টি দূঘর্টনা ঘটেছে। চলতি বছরের জানুয়ারী ও মার্চ মাসে কোন দূঘর্টনা ঘটে নাই। মানুষ যাতে নিবিঘেœ শহর থেকে গ্রামে, আবার গ্রাম থেকে শহরে ফিরতে পারে, এর জন্য হাইওয়ে পুলিশ জনগণের সেবক হিসেবে কাজ করছে।






Related News

Comments are Closed