Main Menu

শ্রীনগরে ভাই-ভাতিজার ইটের আঘাতে ভাইয়ের মৃত্যুর

হাসান রহমান শ্রীনগর প্রতিনিধিঃ  মুন্সীগঞ্জ শ্রীনগরে ভাই – ভাতিজার ইটের আঘাতে আরেক ভাইয়ের মৃত্য ঘটেছে। মঙ্গলবার বেলা ১১ টার দিকে উপজেলার বাঘরা ইউনিয়নের জাহানাবাদ মুসল্লিপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ভূক্তভোগী মেজ ভাই শাহ-আলম শেখ বলেন, তার বড় ভাই নূরুল ইসলাম (৬২) বাড়ির পাশ^বর্তি বাগান থেকে একটি কড়ই গাছের কয়েকটি ডালা কাটে। এ নিয়ে মেজ ভাই শাহ-আলমের সাথে বড় ভাই নূরুল ইসলামের বাকবিতম্বনার একপর্যায়ে বড় ভাইয়ের ছেলে কামাল শেখ (৩০) হঠাৎ কাঁচি দিয়ে চাচা শাহ-আলমকে কোপ দেয়। এতে হাত কেটে গুরুতর আহত হয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় শাহ আলম মাটিতে পরে যায়। পরক্ষনেই বড় ভাই নুরুল ইসলামের মেয়ে কারিশমা(২৫) তার বুকের উপর চেপে বসে। আর এ সুযোগে নুরুল ইসলামের স্ত্রী কুলসুম আক্তার কাঞ্চন, তার ছেলে কামাল ও কাওছার কিল-ঘুষিসহ এলপাথারি লাথি মারতে থাকে চাচা শাহ আলমকে। মারপিট থামানোর জন্য ছোট ভাই সোহরাব শেখ(৫৩) দৌড়ে এলে তারা ছোট ভাই সোহরাবকে মাটিতে ফেলে ইট দিয়ে মাথায় আঘাত করতে থাকে। পরিবার ও পাশ্ববর্তি স্থানীয় লোকজন ছুটে আসে। গুরুতর আহত অবস্থায় সোহরাব শেখকে দোহার ফুলতলা আবদুর রাজ্জাক হাসপাতালে নিয়ে যায়। তার অবস্থা আসংঙ্কা জনক দেখে হাসপাতাল কতৃপক্ষ দ্রুত তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করেন। রাত ১১ টার দিকে সোহরাব শেখ হাসপাতালে মারা যায়। এ ব্যপারে শ্রীনগর থানার কর্মকর্তা ইনচার্জ হেদায়েতুল ইসলাম ভূঞার কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ঘটনার সাথে সম্পৃক্ত কুলসুম কাঞ্চন নামে একজনকে আটক করা হয়েছে। মামলা প্রক্রিয়াধীন।






Related News

Comments are Closed