Main Menu

প্রি-পেইড মিটার বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন।

সিদ্ধিরগঞ্জের জালকুড়ি এলাকায় বিদ্যুতের প্রি-পেইড মিটার বন্ধের দাবিতে জালকুড়ি প্রি-পেইড মিটার সংযোগ প্রতিরোধ কমিটির মানববন্ধন। গতকাল রোববার সকাল ১০’টায় জালকুড়ি বাসষ্ট্যান্ড এলাকায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
জালকুড়ি প্রি-পেইড মিটার সংযোগ প্রতিরোধ কমিটির উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য আব্দুল খালেক প্রধানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে মিটার সংযোগের দালালদের সাবধান ও হুঁশিয়ারি প্রদান করে বলেন, আমরা মিটার নিতে চাই। কিন্তু সেটা গোপনে নয়, আমাদের এর ব্যবহারের সুফল বুঝিয়ে দিতে হবে। আমরা কোন গ্রাহক হয়রানি মেনে নেবোনা। কেউ যদি গোপনে মিটার লাগাতে আসে, আমরা তাদেরকে ঝাঁড়–পেটা ও অপমান করে তাড়িয়ে দেবো। সরকারের প্রি-পেইড মিটার সংযোগের সিদ্ধান্তকে কারণ ছাড়া অবৈধ উল্ল্যেখ করে এই সিদ্ধান্ত বাতিলের দাবি জানিয়ে বক্তারা আরো বলেন, আমরা প্রি-পেইড মিটার চাইনা। আমরা প্রতিপক্ষকে জানাতে চাই, সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ডের বিপক্ষে আমরা নই। তবে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলায় কোন দুর্নীতি চলতে দেয়া হবে না। সাধারণ জনগণের উপর জোরপূর্বক টেকনিক্যাল কোন বিষয় চাপিয়ে দেয়া ঠিক হবে না। অবৈধভাবে মানুষের উপর চাপিয়ে দেওয়ার যে অপতৎপরতা চালানো হচ্ছে, প্রয়োজনে তা আন্দোলন-সংগ্রামের মাধ্যমে প্রতিহত করা হবে। তারা বলেন, আমরা এই মিটারের কোন সুফল পাচ্ছিনা। অনেকেই জানেননা বিধায় এ মিটার ব্যবহার করতে পারবেনা। এতে সাধারণ পরিবারগুলো ভোগান্তিতে পরবে। প্রি-পেইড মিটারে ২২’টি নাম্বার চাপতে হয় একটি নাম্বার ভূল হলে মিটার লক হয়ে যায়। সেই লক খুলতে ৬’শ টাকা লাগে। যা বারবার দরিদ্র পরিবারগুলোর পক্ষে সম্ভব নয়। তাই আমরা এর পক্ষে নই। এই উদ্যোগ অনতিবিলম্বে বন্ধ করা হোক। এ মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন, জালকুড়ি প্রি-পেইড মিটার সংযোগ প্রতিরোধ কমিটির সদস্য প্রফেসর শাহাবুদ্দিন, আনোয়ার হোসেন মাষ্টার ও রেজাউল করিম কুদরতসহ এলাকা কয়েক হাজার জনগন। এসময় সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ওসি(সার্বিক) মীর শাহীন শাহ্ পারভেজসহ পুলিশের অন্যান্য সদস্যরা মানববন্ধনের পাশেই অবস্থান করছিলেন।########






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.