Main Menu

রাজধানীর ভবনে বিস্ফোরণ, নিহত ১


সোমবার (১০ জুন) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে শনির আখড়ার আরএস টাওয়ারের পাশে তিনতলা একটি বাড়ির দ্বিতীয় তলায় বিস্ফোরণের পর দেয়ালটি ধসে পড়ে। ফরিদ আহমেদ (৫০) নামে একজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও তিনজন।

নিহত ফরিদ আহমেদ পেশায় টুপি ব্যবসায়ী। তিনি কদমতলীর রসুলপুর এলাকায় থাকেন।

তার স্ত্রী রওশন আরা জানান, রিকশায় করে ওই এলাকা দিয়ে বাজার করার জন্য যাচ্ছিলেন ফরিদ। এসময় দেয়াল ধসে কয়েকটি ইট তার মাথায় পড়লে তিনি আহত হন। এই অবস্থায় ফরিদকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

আহত তিনজন হলেন- ভ্যানচালক সাইদুল (৩০), ফল ব্যবসায়ী জাকির হোসেন (৩৫) ও একটি বেকারির ম্যানেজার কামাল হোসেন (৪০)। তাদেরও ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

কদমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জামাল উদ্দিন মীর বলেন, কী বিস্ফোরণ হয়েছে তা জানা যায়নি। ঘরের ভেতরে থাকা এসি না অন্যকিছু বিস্ফোরণ হয়েছে পুলিশ অনুসন্ধান করে দেখছে। আমরা ঘটনাস্থলে অবস্থান করছি, বিস্তারিত পরে জানানো হবে।

ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স সদর দপ্তর থেকে টেলিফোন অপারেটর আব্দুল খালেক বলেন, শনির আখড়ায় বিস্ফোরণের পর ঘটনাস্থলে পাঁচটি ইউনিট পাঠানো হয়েছে। আমাদের টিম সেখানে অবস্থান করছে।

ঢামেক পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (ইন্সপেক্টর) বাচ্চু মিয়া বলেন, আহত তিনজনের মধ্যে দু’জনের মাথায় আঘাত আছে ও আরেকজনের দুই হাতে আঘাতসহ শ্বাসকষ্ট হচ্ছে। তবে তাদের অবস্থা এতো গুরুতর নয়।

ঘটনাস্থল থেকে ফায়ার সার্ভিস সদর দফতরের জোন-৬ এর উপ-সহকারী পরিচালক নজিমুজ্জামান বলেন, বাড়িটির তৃতীয় ও দ্বিতীয় তলা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বিস্ফোরণের পর দেয়াল ধসে গেছে। তৃতীয় তলায় গিয়ে দেখলাম দু’টি এসি পুড়ে গেছে। তবে কী কারণে এ বিস্ফোরণ হয়েছে এখনো বলা যাচ্ছে না।






Related News

Comments are Closed