Main Menu

র‌্যাব-১১’র অভিযানে অপরণকারী ও ব্ল্যাকমেইলিং চক্রের ৫ সদস্যকে গ্রেফতার

02 (Medium) (Medium)স্টাফ রিপোর্টারঃ ফতুল্লায় র‌্যাব-১১’র অভিযানে অপহরণ ও ব্ল্যাকমেইলিং চক্রের ৫ সদস্যকে গ্রেফতার। আদায়কৃত ৫ লাখ টাকা মুক্তিপনের মধ্যে ৭৯ হাজার ৯৫০ টাকা ২ জন ভিকটিমকেও উদ্ধার করা হয়েছে। ফতুল্লা থানার ভূইগর মাহমুদপুর এলাকা থেকে গতকাল মঙ্গলবার ভোরে র‌্যাব এ অভিযান পরিচালনা করে। ধৃতদের মধ্যে ৪ জন নারী ও ১ জন পুরুষ। তারা হলেন, কমিল্লা জেলার হোমনা থানার হোমনা পূর্বপাড়া এলাকার মোঃ খোরশীদের স্ত্রী সিদ্ধিরগঞ্জ সানারপাড় এলাকার ভাড়াটিয়া মোসাঃ শিউলি বেগম(৩৫), ঢাকা জেলার কদমতলী থানার ধনিয়া সেলিম রোহানী ক্লাব এলাকার মোঃ সোহাগের স্ত্রী মোসাঃ নাছিমা আক্তার(৩৫), ফতুল্লার ভূইগড় পূর্বপাড়া এলাকার মোঃ মাজন বাশারের ছেলে মোসাঃ নাছিমা বেগম (৪০),একই থানার ভূইগড় মাহমুদপুর এলাকার মোঃ আলমগীরের স্ত্রী মোসাঃ মমতাজ বেগম(৪৫) ও ভূইগড় কড়ইতলা এলাকার মৃত আনু মিয়ার ছেলে মোঃ জসিম মিয়া(৩৮)। র‌্যাবের অভিযান টের পেয়ে পালিয়ে গেছে ওই চক্রের বাবুলসহ আরো ২ জন।
সিদ্ধিরগঞ্জের আদমজীতে অবস্থিত র‌্যাব-১১ বাহিনীর সদর দপ্তরে মঙ্গলবার রাত ৮ টায় এক সাংবাদিক সম্মেলনে র‌্যাবের অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল কামরুল হাসান (পিএসসি) জানায়, মোঃ শাহ জালাল (৩১) ও হুমায়ুন আহমেদ (৩২) নামে দু,ব্যবসায়ীকে গত ১৭ জুলাই বেলা ১ টায় সাইনবোর্ড এলাকা থেকে অপহরণ করে ফতুল্লার ভূইগড় মাহমুদপুর এলাকায় মমতাজ বেগমের বাসায় নিয়ে আটক করে রাখা হয়। পরে তাদেরকে ওই চক্রের যুবতী মেয়েদের সাথে আপত্তিকর ছবি তুলে ইন্টারনেটে প্রকাশ করার ভয় দেখিয়ে বিকাশের মাধ্যমে ২ লাখ ৮০ হাজার ও সোস্যাল ব্যাংকের এটিএম কার্ড ও পিন নম্বর নিয়ে আলাদা ভাবে দু,দফায় ২ লাখ টাকা উত্তোলন করে অপহরণকারী চক্র। এ বিষয়ে ভিকটিমের পরিবার ঢাকার রমনা থানায় জিডি করে। যার নং ১০৬৮। পরে বিষয়টি র‌্যাব ১১ বাহিনীকে জানানো হয়। অভিযোগ পেয়ে র‌্যাব-১১ এর এএসপি আলেপ উদ্দিনের নেতৃত্বে একটি দল ১৭ জুলাই থেকে কাজ শুরু করে। একটানা অভিযান চালিয়ে সোমবারে ভিকটিমদের উদ্ধার ও মঙ্গলবার ভোরে অপহরণ ও ব্ল্যাকমেইলিং চক্রের সদস্যদের গ্রেফতার করা হয়। এ চক্রটি অভিনব কৌশলে প্রেমের ফার্দে ফেলে দেহ বিলিয়ে দেওয়ার প্রলোভনে ফেলে নিজেদের আস্তানায় নিয়ে ভিভিন্ন লোকদের কাজ থেকে মোটা অংকের অর্থ আদায় করে। এ চক্রের পলাতকদের গ্রেফতার করার চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে বলে র‌্যাব জানায়। ধৃতদের বিরুদ্ধে ফতুল্লা থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি প্রক্রিয়াধিন রয়েছে।






Related News

Comments are Closed