Main Menu

যৌতুক মামলায় স্ত্রীকে আদালত পাড়ায় মারধর

নিজস্ব প্রতিবেদক॥

যৌতুকের অভিযোগে মামলা করায় স্ত্রী রেবা বেগমকে মারধর ও শ্লীলতাহানী করেছে স্বামী সহ তার আত্মীয় স্বজনরা। গতকাল রোববার মামলার হাজিরা দিতে আসলে এ ঘটনা ঘটে। রেবাকে একা পেয়ে স্বামী শহীদ তার বোনাই সালাম ও রতন সহ কয়েকজন তাকে মারধর করে। ঘটনার শিকার রেবা বেগম জানান, কয়েক বছর পূর্বে নথুল্লাবাদের কাউন্টার শ্রমিক শহিদ খানের সাথে তার বিয়ে হয়। পরবর্তীতে তাদের সন্তান হওয়ার পর থেকে শহীদ রেবার পৈত্রিক সম্পত্তি বিক্রি করে টাকা এনে দিতে বলে। এতে অস্বীকার করায় শুরু হয় রেবার উপর শহীদ ও তার পরিবারের মানসিক ও শারীরিক নির্যাতন। নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে মহানগর আদালতে যৌতুকের অভিযোগে মামলা করে রেবা। পরে আদালতের নির্দেশে শহীদকে আটকের পর জেলে পাঠানো হয়। ২২ দিন জেলে থাকায় ক্ষিপ্ত হয় শহীদ ও আত্মীয়রা। এর ধারাবাহিকতায় গতকাল মামলার ধার্য তারিখে সকাল সাড়ে ১০টায় আদালতে হাজিরা দিতে আসে রেবা। এ সময় শহীদ ও হাজিরা দিতে আসলে রেবাকে দেখে ক্ষিপ্ত হয় এবং তৎক্ষনাত আদালত কম্পাউন্ডের সামনে বসে মারধর ও শ্লীলতাহানী করে।






Related News

Comments are Closed