বিয়ের প্রথম বছরের যত ঝামেলা

রূপকথার মতো রাজপুত্র ঘোড়ায় চড়ে এলো, রাজকন্যাকে বিয়ে করে নিয়ে গেলো। এরপর সুখে শান্তিতে বসবাস। বিয়ে বলতে এমনটাই মনে করা হয়। কিন্তু ব্যাপারটি কি আসলেই এত মিষ্টি? নাকি কিছু টক-ঝাল বিষয়ও আছে এর মাঝে?

বিয়ের পরে প্রথম কয়েকটা দিন ভালোই কাটে। আনুষ্ঠানিকতা, ছবি তোলা, মধুচন্দ্রিমা, নতুন আত্মীয়দের সঙ্গে পরিচয় সব মিলিয়ে ভালোই যায় শুরুর কয়েকদিন। কিন্তু এরপরেই শুরু হয় ঝামেলা। অধিকাংশ দম্পতিই বিয়ের পর প্রথম একটা বছর বেশ কঠিন সময় কাটান। ভাবছেন সুমধুর দাম্পত্যে আবার কী ঝামেলা? জেনে নিন ফিচারে।

শ্বশুরবাড়ির সঙ্গে বনিবনা না হওয়া: রান্নাঘরে গিয়েই নতুন বউ এর মেজাজ গরম। সব কিছুতেই শাশুড়ির খবরদারী। নিজের সংসারে যেন কিছুই করার অধিকার নেই। আর এই নিয়ে স্বামীর কাছে অভিযোগ। স্বামী বেচারাও বিপদে। মায়ের পক্ষ নিলে বউ ক্ষেপে যায়, আবার বউকে সমর্থন দিলে মা ক্ষেপে যায়। সব মিলিয়ে দাম্পত্য অশান্তি শুরু হয়ে যায় প্রথমেই।

পরিচ্ছন্নতা: বউ ভীষণ খুঁতখুঁতে পরিচ্ছন্নতার ব্যাপারে। কিন্তু স্বামী একদম অগোছালো। গোসল করেই ভেজা টাওয়েলটা বিছানায় রেখে দেয়া তার অভ্যাস। কিংবা কাপড়-চোপড় এলোমেলো করে পুরো ঘরে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রাখার অভ্যাস আছে তার। আবার বউয়ের এত খুঁতখুঁতে স্বভাব মেনে নিতে পারছেন না স্বামীও। এমন হবে জানলে বিয়েই করতেন না, এমনটাই ভাবা শুরু করেন অনেক দম্পতি।

অধিকার খাটানো: এতদিনের স্বাধীন জীবন যেন হুট করেই শেষ। বন্ধুদের সঙ্গে রাতে আড্ডা দিয়ে ফিরলে আগে বলার কেউ ছিল না। আর এখন স্ত্রী অভিমান করে বসে থাকে কিংবা ঝগড়া শুরু করে। শুধু তাই নয়, কখন ঘুম থেকে উঠতে হবে, কখন খেতে হবে, কোথায় যাওয়া যাবে, কোথায় যাওয়া যাবে না ইত্যাদি সব কিছুতেই আরেকটি মানুষের হস্তক্ষেপ একেবারেই মানতে পারেন না নবদম্পতি। ফলে শুরু হয় অশান্তি।

একঘেয়েমি: বিয়ের আগে যেহেতু এক ছাদের নিচে থাকা হয়নি, তাই ধারণাও ছিলনা যে দুজনে সময় কাটানো এত কঠিন হবে। আগে তো সময় পেলেই কোনো রেস্টুরেন্ট বা কফি শপে আড্ডা দেয়া হতো। কিন্তু বিয়ের পরে এক ছাদের নিচে সময় আর কাটতে চায় না। সব মিলিয়ে বিবাহিত জীবনও একঘেয়ে মনে হওয়া শুরু করে।

অভ্যাসের পার্থক্য: স্বামীর নাক ডাকার অভ্যাসের কথা একদমই জানা ছিল না। বিয়ের পরে রীতিমতো ঘুম হারাম হয়ে গেছে। কিংবা স্ত্রীর খুব বেশি শপিং এর নেশার কথাও জানা ছিল না স্বামীর। তাই মানিব্যাগের অবস্থা করুণ। দুজনের দুই ধরনের অভ্যাসের কারণে বিয়ের পরে শুরু হয় অশান্তি।

ঘনিষ্ঠতা: বিয়ের আগে শারীরিক সম্পর্ক নিয়ে যেসব ফ্যান্টাসি থাকে তার অনেক কিছুই পূরণ নাও হতে পারে। আর তখনই শুরু হয় হতাশা। এছাড়াও বিয়ের পরে সময়ের সাথে সাথে শারীরিক ঘনিষ্ঠতার চাইতেও পারিপার্শ্বিক অনেক বিষয় বেশি গুরুত্ব পাওয়া শুরু করে। তখন দুজনের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি তৈরি হতে পারে। মনে হতে পারে সম্পর্কের রোমান্টিকতা একেবারেই হারিয়ে গেছে। টাইমস অব ইন্ডিয়া






Related News

Comments are Closed