দক্ষিণখান কেসি হাসপাতালের ডাক্তারের ভূল চিকিৎসায় অসুস্থ সাবেক পুলিশ সুপার।

রাজধানীর দক্ষিণখান নোয়াপাড়া এলাকায় অবস্থিত কেসি হাসপাতাল এ্যান্ড ডায়াগনষ্টিক সেন্টার। প্রতিষ্ঠানটির নামে বিগত দিন থেকেই নানা রকম অভিযোগ এলাকাবাসীর। গত ৫ ডিসেম্বর ডেন্টাল বিভাগের ডাক্তার সোলাইমান মুকুলের নিকট সাবেক পুলিশ সুপার নুরুল ইসলাম তার দাঁত তোলার জন্য যান। ডাক্তার সোলাইমান বিভিন্ন রকমের পরীক্ষার মাধ্যমে বলেন তার দাঁত ফেলে দিতে হবে। ডাক্তারের কথা শুনে নুরুল ইসলাম তার প্রস্তাবে রাজি হন এবং ডাক্তার সোলাইমান দাঁত তুলে ফেলেন। এক পর্যায়ে দাতের অর্ধেক অংশ মাড়ির মধ্যে আটকে থাকে এবং প্রচন্ড বেগে রক্ত বের হতে থাকে। পরবর্তীতে ডাক্তার সোলাইমান কোন ক্রমেই রক্ত বন্ধ করতে পারে না। এক পর্যায়ে রক্ত বন্ধ হয়ে যায়। ঘটনাটি ঘটার পরে নুরুল ইসলামরে এলাকার কিছু লোক জন ডাক্তার সোলাইমান এর নিকট উপস্থিত হন এবং জিজ্ঞাসা বাদ করলে ডাক্তার সোলাইমান বলেন আমি আমার সিনিয়র ডাক্তারকে পাঠাচ্ছি । এই বলে তিনি চলে যান। সাধারন জনগনকে বিশাল মানের অট্টালিকা দেখিয়ে চিকিৎসার নামে এই ভাবে চলছে দিনের পর দিন কেসি হাসপাতাল এন্ড ডায়াগনষ্টিক সেন্টার। বিস্তারিত আরও জানতে চোখ রাখুন






Related News

Comments are Closed